ময়মনসিংহে জয়নুল উদ্যান হুমকির মুখে

এস এম রুবেল আকন্দ:
ময়মনসিংহের ব্রহ্মপুত্র তীর সংলগ্ন শিল্পাচার্য জয়নুল উদ্যান ঘেঁষে পানি উন্নয়ন বোর্ড নির্মিত ব্রহ্মপুত্র তীর রক্ষা বাঁধের একাংশ প্রবল বৃষ্টির পানিতে ভেঙ্গে গেছে। বৃষ্টির পানিতে ভাঙ্গনের কারনে হুমকির মুখে পরেছে ময়মনসিংহ বিভাগীয় শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিন পার্ক। সম্প্রতি বয়ে যাওয়া আম্পান ঘূর্নিঝড় ও প্রবল বৃষ্টিতে পার্কের বাধ এর ৬ টি অংশ ভেঙ্গে যায় এবং এরপর থেকে চলমান প্রবল বৃষ্টিতে বাধের ভাঙ্গা অংশ গুলোর ভাঙ্গন আরো বহুগুন বেড়ে গিয়েছে। ময়মনসিংহবাসী বিসয়টি সম্পর্কে জরুরী পদক্ষেপ নেয়ার জন্য ময়মনসিংহ সিটি কর্পোরেশন ও পানি উন্নয়ন বোর্ড কর্তৃপক্ষের কাছে বিনীত আবেদন এবং সকলের দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন। দৃষ্টিননন্দন, মনোরম পরিবেশে নানা বৃক্ষে সমৃদ্ধ সৌর্ন্দয্য মন্ডিত জয়নুল আবেদিন পার্কটির অস্তিত্ব হুমকির সম্মুখীন হয়ে পরেছে। আবহাওয়া অফিস সুত্রে জানাগেছে, এমন প্রবল বৃষ্টি আরো হবে, তাই অতি সওর শহর রক্ষা এই বাধের ভাঙ্গা অংশ মেরামত করা না হলে ময়মনসিংহ শহর সহ আশপাশের বিভিন্ন এলাকার ভ্রমন পিপাসু সবার প্রিয় শিল্পাচার্য জয়নুল আবেদিন পার্কটি টিকিয়ে রাখা কঠিন হয়ে দাড়াবে। বাঁধটি জরুরী মেরামতের প্রয়োজন হয়ে পড়ছে। নইলে আরও বড় ক্ষতি হতে পারে। এ ব্যাপারে জেলার আওয়ামী লীগের সাধারন সম্পাদক এডভোকেট মোঃ মোয়াজ্জেম হোসেন বাবুল বলেন, ময়মনসিংহ নগরীর ঐতিয্যবাহী শিল্পাচার্য জযনুল আবেদীন সংগ্রহশালা ও জয়নুল আবেদীন পার্কটি রক্ষা করতে বেরিবাধ সংস্কারে জরুরী ভিত্তিতে যথাযত কর্তৃপক্ষের পদক্ষেপ নেয়া প্রয়োজন। বিষয়টি নিয়ে আমি জেলার প্রশাসক কর্মকর্তাদের সাথে কথা বলবো। জেলার যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক শাহ শওকত উসমান লিটন বলেন, ময়মনসিংহে শতবর্ষের ঐতিয্য শিল্পাচার্য জযনুল আবেদীন সংগ্রহশালা ও জয়নুল আবেদীন পার্কটি রক্ষা করার জন্য জরুরী ভিত্তিতে বেরিবাধটি কাজ করা প্রয়োজন। এটি ময়মনসিংহবাসী জন্য ঐতিয্যের অন্যতম। জেলার টিইউসি সভাপতি মাহবুব বিন সাইফ বলেন, জরুরী ভিত্তিতে পার্কের বেরি বাধ সংস্কারের কাজ করা প্রয়োজন। তিনি বলেন, ব্রম্মপুত্র নদ থেকে ড্রেজার দিয়ে বালু উত্তোলন করা হচ্ছে। এতে অনেক স্থানে এমনিতেই ভাঙ্গনের সৃষ্টি হচ্ছে। জেলার প্রশাসক মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেন, বিষয়টি সম্পর্কে আমি পানি উন্নয়ন বোর্ড ও সিটি কর্পোরেশনকে বলবো। আশাকরি তরিৎ পদক্ষেপ নেয়া হবে। এ ব্যাপারে পানি উন্নয়ন বোর্ডের উপ বিভাগীয় প্রকৌশলী মোঃ শামসুদ্দোহা জানান, ক্ষতিগ্রস্ত এলাকাটি দেখেছি, দ্রুত মেরামতের কাজ শুরু হবে।

 

Daily Amar bangladesh

Lorem Ipsum is simply dummy text of the printing and typesetting industry. Lorem Ipsum has been the industry's standard dummy text ever since the 1500s, when an unknown printer took a galley of type and scrambled it to make a type specimen book. It has survived not only five centuries