দুর্বল হয়ে পড়ছে করোনাভাইরাস, দাবি ইতালির চিকিৎসকের

করোনাভাইরাস ধীরে ধীরে দুর্বল হয়ে পড়ছে বলে দাবি করেছেন ইতালির লম্বার্ডি অঞ্চলের মিলান শহরের সান রাফায়েল হাসপাতালের প্রধান আলবার্তো জাংরিলো। এ ছাড়া ভাইরাসটি ধীরে ধীরে কম প্রাণঘাতী হয়ে পড়ছে বলেও দাবি এই চিকিৎসকের। ইতালির আরএআই টেলিভিশনে এক সাক্ষাৎকারে এ দাবি করেন জাংরিলো। যুক্তরাষ্ট্রভিত্তিক সংবাদমাধ্যম ইউএস নিউজ গতকাল রোববার এক প্রতিবেদনে এ খবর জানিয়েছে।

আলবার্তো জাংরিলো বলেন, ‘বাস্তবতা হলো, ভাইরাসটি ক্লিনিক্যালি আর ইতালিতে নেই। গত এক অথবা দুমাস আগে যে পরিস্থিতি ছিল, তা গত ১০ দিনে পরিমাণগভাবে অনেক ক্ষুদ্র আকার নিয়েছে।’

এরই মধ্যে মে মাস থেকে ইতালিতে ভাইরাসটির সংক্রমণ কমতে শুরু করে এবং দেশটির বিভিন্ন এলাকায় লকডাউন শিথিল করার সিদ্ধান্ত নেয় দেশটির সরকার।

জাংরিলো বলেন, ‘আমাদের দেশকে স্বাভাবিক পর্যায়ে নিয়ে যেতে হবে।’ তবে সরকার সতর্ক করে আহ্বান জানিয়েছে, এখনই সাফল্য উদযাপন করার সময় আসেনি।

স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তা আন্দ্রা জাম্পা বলেছেন, ‘আমাদের সর্বোচ্চ সতর্কতা অবলম্বন করতে হবে। এ ছাড়া শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করা, বড় জমায়েত এড়িয়ে যাওয়া, নিয়মিত হাত ধোয়া ও মাস্ক পরা অব্যাহত রাখতে হবে।’

এদিকে ইতালির আরেক অভিজ্ঞ চিকিৎসকও দাবি করেছেন, ভাইরাসটি আগের তুলনায় দুর্বল হয়ে পড়েছে।

দেশটির লিগুরিয়া অঞ্চলের জেনোয়া শহরের সান মার্টিনো হাসপাতালের সংক্রামক রোগ ক্লিনিকের প্রধান মাতেও বাসেত্তি বলেছেন, ‘বর্তমানে ভাইরাসটির শক্তি গত দুমাস আগের মতো নেই। এটি পরিষ্কার যে, কোভিড-১৯ রোগটি এখন অন্যরকম হয়ে গেছে।’

এরই মধ্যে ইতালিতে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে দুই লাখ ৩২ হাজার ৯৯৭ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৩৩ হাজার ৪১৫ জনের। এ ছাড়া সুস্থ হয়েছে এক লাখ ৫৭ হাজার ৫০৭ জন।

Daily Amar bangladesh

Lorem Ipsum is simply dummy text of the printing and typesetting industry. Lorem Ipsum has been the industry's standard dummy text ever since the 1500s, when an unknown printer took a galley of type and scrambled it to make a type specimen book. It has survived not only five centuries